| ২২শে অক্টোবর, ২০১৯ ইং | ৭ই কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | ২২শে সফর, ১৪৪১ হিজরী | মঙ্গলবার

ব্যক্তিগত সব রেকর্ড আমার কাছে তুচ্ছ: আক্ষেপ নিয়ে সাকিব

স্পোর্টস ডেস্ক | নরসিংদী প্রতিদিন- রবিবার,০৭ জুলাই ২০১৯:
‘আমি ভালো করলাম, কিন্তু দল সেমিফাইনাল খেলতে পারল না। আক্ষেপ হলো আমরা দল হিসেবে খেলতে চেয়েছিলাম, সেটা করতে পারলাম না। বাংলাদেশের মানুষের যে প্রত্যাশা ছিল, ঠিকভাবে সেটা পূরণ করতে পারিনি।’ এবারের বিশ্বকাপে ম্যান অব দ্যা টুর্নামেন্টের দাবিদার সাকিব আল হাসান বিশ্বকাপ অভিযান শেষে করে দেশে ফেরার আগে এভাবেই নিজের আক্ষেপের কথাগুলো বলছিলেন।

ইংল্যান্ড বিশ্বকাপে ব্যাট হাতে ৮ ম্যাচে ৬০৬ রান করা সাকিব ম্যাচ সেরা হয়েছেন বাংলাদেশের জয়ের প্রতিটি ম্যাচেই। বল হাতে নিয়েছেন ১১ উইকেট। বিশ্বকাপে এর আগে এক ম্যাচে হাফসেঞ্চুরি ও ৫ উইকেটের রেকর্ড ছিল ছিল ভারতীয় অলরাউন্ডার যুবরাজ সিংয়ের। সেটিকেও ছুঁয়ে গেলেন সাকিব। এবারের বিশ্বকাপে ব্যাটে-বলে নিজেকে সব্যসাচী করে তোলা সাকিবের তবুও আক্ষেপ সেমিফাইনাল খেলতে না পারার।

তবে সাকিবের এমন পারফরম্যান্সে বিশ্বের কিংবদন্তি ক্রিকেটাররাও তাকে প্রশংসায় ভাসাচ্ছেন। কিন্তু সাকিব মনে করেন, তার এই ভালো খেলার কোনও মূল্য নেই, কারণ বাংলাদেশের ভক্ত-সমর্থকদের প্রত্যাশা ছিল দল এবার সেমিফাইনাল খেলবে। সেই প্রত্যাশা পূরণ হয়নি।

গতকালই ইংল্যান্ড ছেড়েছে টিম বাংলাদেশ। আজ বিকেলে ঢাকায় পৌঁছুনোর কথা রয়েছে সাকিব-মাশরাফিদের।

দেশে পা রাখার আগে বুক ভরা আক্ষেপ প্রকাশ করে সাকিব বলেন, ‘দলীয় প্রত্যাশা পূরণ না হলে ব্যক্তিগতভাবে সফল হওয়ার কোনও মূল্য থাকে না।

ব্যাক টু ব্যাক সেঞ্চুরি ও ৫টি ফিফটি হাঁকিয়ে বিশ্বকে তাক লাগিয়ে দেয়া সাকিব আরও বলেন, ‘ব্যক্তিগত পারফরম্যান্সে আমি খুবই খুশি। যে ধরনের ইচ্ছা, মন-মানসিকতা নিয়ে ইংল্যান্ডে এসেছিলাম, সেদিক দিয়ে আমি খুশি, তৃপ্ত।’

“সব কাজ তুচ্ছ হয়—পণ্ড মনে হয়, সব চিন্তা—প্রার্থনার সকল সময় শূন্য মনে হয়, শূন্য মনে হয়”- জীবনানন্দের কবিতার সেই কথাগুলোই ঘুরেফিরে এলো সাকিবের কণ্ঠেও। ব্যক্তিগত রেকর্ড খুব কিছু নয় বলেই মনে করেন সাকিব- ‘আমি মনে করি, দল সেমিফাইনালে খেলতে পারলে সবচেয়ে ভালো রেকর্ড হতো। এক্ষেত্রে আমার ব্যক্তিগত সব রেকর্ড আমার কাছে তুচ্ছ। আমি মনেপ্রাণে সেমিফাইনালটা খেলতে চেয়েছিলাম। আমরা একসঙ্গে ভালো খেলতে পারিনি। দল হয়ে পারফর্ম করতে পারিনি।’

সাকিব আরও বলেন, ‘সত্যি কথা বলতে, আমি ব্যক্তিগত রেকর্ড নিয়ে কখনও চিন্তা করিনি। যে সুযোগ এসেছে আমার কাছে সেটা যথেষ্ট ছিল। রেকর্ডের কথা ভেবে খেলার মানুষ আমি নই।’

সাকিবের জন্য খারাপ লাগার কথা জানিয়েছেন টাইগার কাপ্তান মাশরাফি বিন মুর্তোজাও। দলের অন্যান্য সতীর্থরাও সাকিবের জন্য আক্ষেপ প্রকাশ করেছেন। এমন একজন পারফরমারকে পেয়েও দল যে সেমিফাইনাল খেলতে পারলো না, না জানি আরও কতদিন এই না পারার মাশুল দিতে হয়! না জানি আরও কত দূর এই অপেক্ষার পথ!

সময় বাচাঁতে ঘরে বসে কেনা-কাটা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *