1. khandakarshahin@gmail.com : Breaking News : Breaking News
  2. laxman87barman@gmail.com : laxman barman : laxman barman
  3. shahinit.mail@gmail.com : narsingdi : নরসিংদী প্রতিদিন
  4. msprovat@gmail.com : ms provat : ms provat
  5. hsabbirhossain542@gmail.com : সাব্বির হোসেন : সাব্বির হোসেন
শনিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৬:২২ অপরাহ্ন

ভারতীয় মুভির ভয়ংকর বিন্দু মাসী এখন নরসিংদীতে

ডেস্ক রিপোর্ট | নরসিংদী প্রতিদিন
  • প্রকাশের তারিখ | মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী, ২০১৭

নরসিংদী প্রতিদিন ডেস্ক: ‘ঘাতক’ নামে ভারতীয় বিখ্যাত এ্যাকশন মুভির বিন্দু মাসী চরিত্রের এক বাস্তব ভয়ংকর কিলার লেডীর সন্ধান পাওয়া গেছে নরসিংদীতে। তার নাম রেখা বেগম। সে নরসিংদী সদর উপজেলার হাজীপুর ইউনিয়ন পরিষদের সংরক্ষিত মহিলা আসনের মেম্বার। ‘ঘাতক’ মুভির বিন্দু মাসীর মত তারও রয়েছে অবৈধ ব্যবসা, রয়েছে ব্যবসার ডিফেন্ডার হিসেবে এক শক্তিশালী কিলার বাহিনী। রয়েছে গডফাদারসহ এক কিলার পুত্র ও আশেপাশে এক ভয়াবহ সিকোয়েন্স। ইয়াবা ব্যবসার বিরোধিতা করায় এই কিলার লেডী রেখা বেগম তার পুত্র ও তার বাহিনী নিয়ে নিজে উপস্থিত থেকে সুজন নামে এক যুবককে ঠান্ডা মাথায় কুপিয়ে কঁচুকাটা করে এবং গুলি করে হত্যা করেছে। বাদী পক্ষ এ ব্যাপারে দায়েরকৃত এজাহারে তার নাম দিয়েছে রেখা বেগম ওরফে মক্ষীরানী ওরফে বিন্দু মাসী।
ঘটনার প্রেক্ষাপট হচ্ছে ইউপি মেম্বার রেখা বেগম ওরফে বিন্দু মাসী এক সময় একটি ইন্স্যুরেন্স কোম্পানীর কর্মী ছিল। সেই সুবাদে লোকজনের সাথে যোগাযোগের সূত্রে সে নরসিংদী সদর উপজেলার হাজীপুর ইউনিয়ন পরিষদের ১, ২ ও ৩ সংরক্ষিত মহিলা আসনে পরপর ৪ বার নির্বাচন করে এবার সিল মেরে জয় লাভ করে। ভারতীয় মুভির বিন্দু মাসীর বাহিনীর মতই বাস্তবে রেখা বেগমের বাহিনীর সদস্যরা ভোট কেন্দ্র দখল করে সিল মেরে তাকে পাশ করায়। তার দুই ছেলে কামাল ও জামাল ভয়ংকর সন্ত্রাসী। আর এ থেকেই এলাকার একজন গডফাদারের সাথে তার যোগাযোগ ঘটে। এই যোগাযোগ সূত্রেই সে ইয়াবা ব্যবসার সাথে জড়িয়ে পড়ে। কিছুদিন পূর্বে পুলিশ তার বাড়ি থেকে কিছু ইয়াবা ও টাকা তৈরীর সরঞ্জাম উদ্ধার করে। যদিও পরে ঘটনাটি গডফাদারের মধ্যস্ততায় সেখানেই শেষ হয়ে যায়। এই ইয়াবা ব্যবসার বিরুদ্ধে স্বোচ্চার হয় দড়িপাড়া গ্রামের হানিফের পুত্র সুজন। সে রেখা বেগম ওরফে বিন্দু মাসীর ইয়াবা ব্যবসার বিরুদ্ধে বিভিন্ন জায়গায় সমালোচনা করলে বিন্দু মাসী রেখা বেগম তার প্রতি মারাত্মক ক্ষিপ্ত হয়। ক্ষিপ্ত হয় ইয়াবা ব্যবসার গডফাদাররাও। আর এরই ফলশ্র“তিতে গত ২৪ জানুয়ারি রাতে সুজনকে তার ছেলে সন্ত্রাসী কামাল ও তার বাহিনীর মাধ্যমে ডেকে নিয়ে বীভৎসভাবে কুপিয়ে ও গুলি করে হত্যা করে। বিন্দু মাসী নিজে উপস্থিত থেকে তার ঘাড়, মাথা, শরীরে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কমবেশি অর্ধশত আঘাত করে। এতে হাতের আঙ্গুল কেটে বিচ্ছিন্ন করে দেয়া হয়। দুই পায়ের রগ কেটে ফেলা হয়। এরপর মৃত্যু নিশ্চিত করার জন্য সুজনের উরু ও এবং বুকে ক্ষুদ্র আগ্নেয়াস্ত্র ঠেকিয়ে গুলি করে। এতে বুকের গুলিটি কলিজায় গিয়ে বিদ্ধ হয়ে আটকে যায়। এ অবস্থায় ৪ দিন ঢামেক হাসপাতালের আইসিইউতে থেকে সুজন মারা যায়। এ ব্যাপারে সুজনের বড় ভাই সুমন বাদী হয়ে রেখা বেগম ওরফে বিন্দু মাসীকে প্রধান আসামী করে ১৪ জনের বিরুদ্ধে নরসিংদী সদর মডেল থানায় মামলা দায়ের করে।

সূত্র: অনলাইন: লেখক: সরকার আদম আলী,নরসিংদী, স্টাফ রিপোর্টার, দৈনিক ইনক্লাব:



এই পাতার আরও সংবাদ:-





টিম-নরসিংদী প্রতিদিন এর সার্বিক তত্ত্বাবধানে শাহিন আইটি এর একটি প্রতিষ্ঠান-নরসিংদী প্রতিদিন-
Theme Customized BY WooHostBD