1. khandakarshahin@gmail.com : Breaking News : Breaking News
  2. laxman87barman@gmail.com : laxman barman : laxman barman
  3. shahinit.mail@gmail.com : narsingdi : নরসিংদী প্রতিদিন
  4. msprovat@gmail.com : ms provat : ms provat
  5. hsabbirhossain542@gmail.com : সাব্বির হোসেন : সাব্বির হোসেন
সোমবার, ২৯ নভেম্বর ২০২১, ১১:৫২ পূর্বাহ্ন

নরসিংদীতে প্রবীণ সাংবাদিক নিবারণ রায়ের মুক্তিযোদ্ধা সনদ মিলবে কবে

ডেস্ক রিপোর্ট | নরসিংদী প্রতিদিন
  • প্রকাশের তারিখ | শনিবার, ৩১ মার্চ, ২০১৮

নিজস্ব প্রতিবেদক,নরসিংদী প্রতিদিন,শনিবার,৩১ মার্চ ২০১৮: গত ২৬ শে মার্চ ছিল ৪৮ তম মহান স্বাধীনতা দিবস। এদিনটি বাঙালি জাতির জন্য বিশেষ স্মরণীয়। মুক্তিযোদ্ধাদের কাছে গৌরবের ও মর্যাদার। এদিনে জাতি তাদের স্মরণ করে শ্রদ্ধাভরে। দেশ স্বাধীন হওয়ার পর কয়েক দফায় মুক্তিযোদ্ধাদের তালিকা তৈরি করা হয়েছে। তারপরও অনেক প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধার নাম তালিকাভুক্ত হয়নি। তাদের মধ্যে নরসিংদীর প্রবীণ সাংবাদিক নিবারণ রায় একজন। গত বছরের শেষের দিকে যাচাই-বাছাই করে পুনরায় মুক্তিযোদ্ধাদের তালিকা প্রস্তুত হয়, সেই তালিকায় নিবারণ রায়ের নাম থাকলেও স্বাধীনতার ৪৭ বছরেও মেলেনি তার মুক্তিযোদ্ধার সনদ। সাংবাদিক ও মুক্তিযোদ্ধা নিবারণ রায় ১৯৭১-এ কলমের পরিবর্তে হাতে তুলে নেন অস্ত্র।

পাকিস্থানি হানাদার বাহিনীর ওপর মুক্তিবাহিনীর হামলার খবর তিনি পরিবেশন করতেন তৎকালীন সাপ্তাহিক বাংলার বাণী পত্রিকায়। মুক্তিযুদ্ধে এই কলম যোদ্ধার বিশেষ অবদান থাকলেও স্বাধীনতার ৪৭ বছরেও মেলেনি তার মুক্তিযোদ্ধার সনদপত্র। তবে সম্প্রতি মুক্তিযোদ্ধাদের নরসিংদী সদর উপজেলার ‘খ’ তালিকায় তার নাম অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে।
নিবারণ রায় জানান, ৭ মার্চ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাষণের পর নরসিংদী জেলার বিভিন্ন স্থানে প্রশিক্ষণ কেন্দ্র খুলে শত শত যুবককে প্রশিক্ষণ দেওয়া শুরু হয়। ২৫ মার্চ রাতে বাঙালির ওপর হানাদারদের হামলা শুরু হওয়ার পর মুক্তিযোদ্ধাদের সহযোগিতায় এগিয়ে আসেন নিবারণ রায়। নিবারণ রায়ের বয়স ৬৬ বছর। সাংবাদিকতা করছেন গত ৪৬ বছর ধরে। নরসিংদী জেলা প্রতিনিধি হিসেবেই কাজ করছেন দৈনিক ইত্তেফাকে।

মুক্তিযোদ্ধের সময় পাকিস্থানি হানাদার বাহিনী কাছে নিবারণ রায় যেমন আপোশ করেনি, তেমনি এই কলম যোদ্ধা এখনো অন্যায়ের কাছে আপোশ করে না। একজন সৎ মানুষ হিসেবে জীবন যাপন করেন।
এ ব্যাপারে নরসিংদী জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আবদুল মোতালিব পাঠানের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, নিবারণ রায়ের মতো একজন প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধার নাম এতদিন কেন তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হয়নি তা আমার বোধগম্য নয়। তবে এবার যে তালিকা প্রস্তুত করা হয়েছে তাতে তার নাম ‘খ’ তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। চূড়ান্ত তালিকায় তার নাম ওঠা এখন সময়ের ব্যাপার মাত্র। যাচাই-বাচাই কমিটির নয়জনের মধ্যে সাতজনই তার পক্ষে মত দিয়েছে। চূড়ান্ত তালিকায় নাম উঠতে তা সহায়ক ভূমিকা পালন করবে।



এই পাতার আরও সংবাদ:-





DMCA.com Protection Status
টিম-নরসিংদী প্রতিদিন এর সার্বিক তত্ত্বাবধানে শাহিন আইটি এর একটি প্রতিষ্ঠান-নরসিংদী প্রতিদিন-
Theme Customized BY WooHostBD