1. khandakarshahin@gmail.com : Breaking News : Breaking News
  2. laxman87barman@gmail.com : laxman barman : laxman barman
  3. shahinit.mail@gmail.com : narsingdi : নরসিংদী প্রতিদিন
  4. msprovat@gmail.com : ms provat : ms provat
  5. hsabbirhossain542@gmail.com : সাব্বির হোসেন : সাব্বির হোসেন
বুধবার, ২৭ অক্টোবর ২০২১, ১০:৫৯ পূর্বাহ্ন

বেলাবতে কবরকে মাজার বানানোর চেষ্ঠা, আস্তানা ভেঙ্গে দিল যুব সমাজ

ডেস্ক রিপোর্ট | নরসিংদী প্রতিদিন
  • প্রকাশের তারিখ | রবিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী, ২০২০

আলমগীর পাঠান | নরসিংদী প্রতিদিন –
রবিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০ :
বেলাবতে একটি পুরাতন কবরকে মাজার বানানোর হোতা তাজুল ইসলাম ওরফে উদাম শাহের আস্তানা ভেঙ্গে দিয়েছে এলাকার যুব সমাজ। ঘটনাটি ঘটেছে গত শনিবার বিকালে বেলাব উপজেলার আমলাব ইউনিয়নের লাখপুর গ্রামে। 

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান,পাশ্ববর্তী আব্দুল্লানগর গ্রামের একটি পুরাতন মাজারের খাদেম ছিলেন আব্দুল্লানগর গ্রামের আমির হোসেনের ছেলে উদাম শাহ নামে পরিচিত তাজুল ইসলাম। পরে মাসখানেক আগে সেই মাজার কমিটির সাথে মনোমালিন্যের কারনে উদাম শাহ সেখান থেকে বিতারিত হয়ে চলে আসেন লাখপুর গ্রামের পিপঁড়াটুলী মসজিদের কাছে। এসময় লাখপুর গ্রামের বিভিন্ন লোকের সাথে আলোচনা ও সমঝোতা করে সাধন ভজনের অজুহাতে একটি পুরাতন কবরকে মাজার বানিয়ে তার পাশেই টিনশেটের একটি আস্তানা করে সাধারন মানুষকে বিভিন্ন রোগের জন্য পানি পড়া দিতে থাকেন। এভাবে প্রায় ১৫ দিন অতিক্রম হলে এলাকার কিছু যুবক সমাজ সম্মিলিত হয়ে উদাম শাহের আস্তানা গুড়িয়ে দেয়। 

সরেজমিনে লাখপুর গ্রামে গিয়ে দেখা যায়,মাজারের মত করে পাকা করা প্রায় ত্রিশ বছর আগের একই গ্রামের রুস্তম আলীর ছেলে মৃত হাছেন আলী ওরফে হাছুইন্না ফকিরের পাকা কবরের উপরে লাল গামছা বিছিয়ে মাজার বানিয়েছে উদাম শাহ। মাজারের পাশেই ছড়ানো ছিটানো আগরবাতি,ভক্ত ও সাধারন মানুষকে পানি পড়া দেয়ার ভাঙ্গা মাটির কলস,কিছু শুকনো ফুলের অংশ ও পাশেই টিন দিয়ে তৈরী করা ভেঙ্গে ফেলা উদাম শাহের আস্তানা। 

এসময় কথা হয় মৃত হাছুইন্না ওরফে হাসান আলীর ছেলে জয়নাল আবেদীনের সাথে তিনি বলেন,আমার পিতা হাছের আলী ফকির জীবদ্দশায় ফকিরী লাইনে জীবন যাপন করেছে। উনি মারা যাবার পর প্রায় ছয় বছর আগে উনার কবরটি আমরা মাজারের মত করে পাকা করি। এ কবরের পাশে সাধন করার উদ্দেশ্যে আস্তানা করে তাজুল ইসলাম।
 
বেলাব উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি ও পাশ্ববর্তী উজিলাব গ্রামের বাসিন্দা মোশারফ হোসেন নীলু বলেন,সাধনের নামে সে বার মাস খালী গায়ে থাকে ঠিক আছে। কিন্তু একটি পুরাতন কবরকে মাজার বানানো ভন্ডামী ছাড়া কিছুইনা। 

তাজুল ইসলাম ওরফে উদাম শাহ বলেন, আমি সাধনের জন্যই এই জায়গাটিতে আস্তানা করি। পুরাতন কবরটি একজন ধার্মিক লোকের। তাই আমি উক্ত মাজারে বাতি দিয়েছি,পাশের মসজিদে নিয়মিত নামাজ পড়েছি। আমি পাগল মানুষ কারো ক্ষতি করিনি। কিন্তু উপজেলা ছাত্রলীগের সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক নুরুল হাসান ভূইয়াসহ এলাকার কিছু ছেলেরা মিলে আমার আস্তানা অন্যায়ভাবে ভেঙ্গে দেয়।

উপজেলা ছাত্রলীগের সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক নুরুল হাসান ভূইয়া বলেন,উদাম শাহের আস্তানা কে ভেঙ্গেছে আমি জানিনা। কেউ যদি আমার কথা বলে থাকে তাহলে ভুল বলেছে। বেলাব থানার ওসি মোঃ ফখরুউদ্দীন ভূইয়া বলেন, রাতারাতি একটি পুরাতন কবরকে মাজার বানানো এটা ভন্ডামী ছাড়া কিছুইনা। এ ব্যাপারে এ পর্যন্ত থানায় কেউ অভিযোগ দায়ের করেনি।



এই পাতার আরও সংবাদ:-





DMCA.com Protection Status
টিম-নরসিংদী প্রতিদিন এর সার্বিক তত্ত্বাবধানে শাহিন আইটি এর একটি প্রতিষ্ঠান-নরসিংদী প্রতিদিন-
Theme Customized BY WooHostBD