1. khandakarshahin@gmail.com : Breaking News : Breaking News
  2. laxman87barman@gmail.com : laxman barman : laxman barman
  3. shahinit.mail@gmail.com : narsingdi : নরসিংদী প্রতিদিন
  4. msprovat@gmail.com : ms provat : ms provat
  5. hsabbirhossain542@gmail.com : সাব্বির হোসেন : সাব্বির হোসেন
বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ১১:১৭ অপরাহ্ন

পণ্য বেচাকেনায় ভ্যাটসহ বিক্রয়মূল্য লেখা বাধ্যতামূলক

অনলাইন ডেস্ক | নরসিংদী প্রতিদিন
  • প্রকাশের তারিখ | সোমবার, ১১ অক্টোবর, ২০২১

যে কোনো পণ্য বেচাকেনার তালিকায় বিক্রেতাকে ভ্যাট অন্তর্ভুক্ত করে পণ্যের দাম লিখতে হবে। শুধুমাত্র পণ্যের দাম লিখে মূল্য পরিশোধের সময় গ্রাহকের কাছ থেকে ভ্যাটের অর্থ রাখা যাবে না। একইসঙ্গে বিক্রয়কেন্দ্রে ইএফডির মতো বিক্রয় চালান মুদ্রণের ব্যবস্থাও রাখতে হবে। জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) ভ্যাট বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত আদেশ জারি করা হয়েছে।

সাম্প্রতিক সময়ে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের প্রথম সচিব (মূসক নীতি) কাজী ফরিদ উদ্দীন সই করা এক আদেশ বলা হয়, এখন থেকে ইএফডির মতো বিক্রয় চালান মুদ্রণের ব্যবস্থা থাকতে হবে এবং অনুরূপ চালান ব্যতীত ভিন্ন কোনো চালান, যেমন: কথিত সেটেলম্যান্ট বা খসড়া চালান ইস্যু করা যাবে না।

একইসঙ্গে ২০১৯ সালের ২৩ জুন জারিকৃত আদেশের অনুচ্ছেদ ২ এর দফা ( গ ) এর ৬ নম্বরে এ বিষয়টি যুক্ত হবে। বিষয়টি হলো: সরবরাহকৃত পণ্য বা সেবার বিবরণ, পরিমাণ, একক মূল্য (মূসক বা প্রযোজ্য ক্ষেত্রে মুসক ও সম্পূরক শুল্কসহ ), মোট মূল্য ( মূসক বা প্রযোজ্য ক্ষেত্রে মুসক ও সম্পূরক শুল্কসহ ) এবং মূসক বা প্রযোজ্য ক্ষেত্রে মূসক ও সম্পূরক শুল্কের হার ও পরিমাণের ক্ষেত্রে সকল মূল্য বাংলাদেশি টাকায় প্রদর্শিত হবে।

আদেশের বিষয়ে এনবিআর থেকে জানানো হয়, পণ্যের মূল্য ট্যাগে পণ্যের দাম, ভ্যাটের পরিমাণ ও সম্পূরক শুল্ক প্রযোজ্য হলে আলাদা করে লিখতে হবে। যেমন : রেস্তোরাঁ বা ফাস্ট ফুডের দোকানে টেবিলে প্রদর্শিত খাবারের তালিকা থাকে। সেখানে খাবার তালিকায় মূল্য লেখার পাশাপাশি ‘প্লাস’ শব্দটি লিখে ভ্যাট প্রযোজ্য বলা থাকে। ভোক্তা যখন বিল পরিশোধ করতে যান তখন ভ্যাট যুক্ত করে বিল রাখা হয়।

তবে এখন থেকে সেটা করা যাবে না। আগেই খাবারের মূল্য ও ভ্যাট লিখতে হবে তালিকায়। যেন গ্রাহক বুঝতে পারেন খাবার গ্রহণ শেষে তাকে মোট কত টাকা পরিশোধ করতে হবে।

বর্তমানে এসি রেস্তোরাঁ বা ফাস্ট ফুডে খাবারের ওপর ১০ শতাংশ এবং নন-এসি রেস্তোরাঁয় সাড়ে ৭ শতাংশ ভ্যাট আরোপ করা আছে। আর ব্র্যান্ডের শোরুমে পোশাকে সাড়ে ৭ শতাংশ ভ্যাট দিতে হয়। এ ছাড়া, অনলাইনে পণ্যে ৫ শতাংশ ভ্যাট প্রযোজ্য রয়েছে।



এই পাতার আরও সংবাদ:-





DMCA.com Protection Status
টিম-নরসিংদী প্রতিদিন এর সার্বিক তত্ত্বাবধানে শাহিন আইটি এর একটি প্রতিষ্ঠান-নরসিংদী প্রতিদিন-
Theme Customized BY WooHostBD