1. nahidprodhan143@gmail.com : নরসিংদী প্রতিদিন : নরসিংদী প্রতিদিন
  2. khandakarshahin@gmail.com : Breaking News : Breaking News
  3. laxman87barman@gmail.com : laxman barman : laxman barman
  4. narsingdipratidin.mail@gmail.com : narsingdi :
  5. news@narsingdipratidin.com : নরসিংদী প্রতিদিন : নরসিংদী প্রতিদিন
  6. msprovat@gmail.com : ms provat : ms provat
  7. hsabbirhossain542@gmail.com : সাব্বির হোসেন : সাব্বির হোসেন
  8. subeditor@narsingdipratidin.com : Narsingdi Pratidin : Narsingdi Pratidin
সোমবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৮:৫৫ অপরাহ্ন



পলাশে যৌতুকের জন্য গৃহবধূকে গলায় ফাঁস দিয়ে হত্যা, স্বামী পলাতক

রিপোর্টারের নাম
  • প্রকাশিত শনিবার, ২৬ আগস্ট, ২০১৭

নরসিংদী প্রতিদিন:  পলাশে যৌতুকের জন্য হাবিবা (২২) নামে এক গৃহবধূকে গলায় ফাঁস দিয়ে হত্যা করা হয়েছে । শুক্রবার রাতে উপজেলার ডাঙ্গা ইউনিয়নের কান্দাপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর হাবিবার স্বামী জহিরুল ইসলাম পলাশ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে তার লাশ রেখে পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে শনিবার সকালে পুলিশ হাসপাতাল থেকে হাবিবার লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠায়। এ ঘটনায় পাঁচজনকে আসামি করে পলাশ থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে। জহিরুল ইসলাম ডাঙ্গার কান্দা পাড়া গ্রামের মোবারক ইসলামের ছেলে ও হাবিবা একই ইউনিয়নের কাজৈর গ্রামের প্রবাসী হাবিবুল্লার মেয়ে।
নিহতের চাচা আতাউল্লাহ জানায়, তিন মাস পূর্বে জহিরুল ইসলামের সাথে হাবিবার বিয়ে হয়। বিয়ের সময় মেয়ের সুখশান্তির কথা চিন্তা করে তিন লাখ টাকা যৌতুক দেওয়া হয়। কিন্তু বিয়ের পর থেকে শশুড় বাড়ির লোকজন বাপের বাড়ি থেকে আরো টাকা এনে দেওয়ার জন্য প্রায় সময় হাবিবাকে শারিরিক নির্যাতন করত। কিছুদিন আগেও ১৫ হাজার টাকা এনে দেওয়ার কথা বলেছিল। টাকা না দেওয়াতে তার শশুড় বাড়ির লোকজন হাবিবাকে পরিকল্পিত ভাবে গলায় ফাঁস দিয়ে হত্যা করে।
পলাশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবুল কালাম আজাদ জানান, নিহতের গলায় আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে রাতে তাকে হত্যা করে পরে এটাকে আত্মহত্যা বলে চালিয়ে দিতে লাশ হাসপাতালে নিয়ে যায়। পরে রাতেই জহিরুল পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় নিহতের চাচা বাদী হয়ে হাবিবার স্বামী, শশুড় শাশুড়ী, দেবর ও ননদকে আসামী করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করে। পুলিশ নিহতের শাশুড়ী কুলসুম বেগমকে আটক করেছে।

follow and like us:
0

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরো সংবাদ পড়ুন
শাহিন আইটির একটি অঙ্গ-প্রতিষ্ঠান