1. khandakarshahin@gmail.com : Breaking News : Breaking News
  2. laxman87barman@gmail.com : laxman barman : laxman barman
  3. shahinit.mail@gmail.com : narsingdi : নরসিংদী প্রতিদিন
  4. msprovat@gmail.com : ms provat : ms provat
  5. hsabbirhossain542@gmail.com : সাব্বির হোসেন : সাব্বির হোসেন
রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৭:২৫ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞাপণ দিতে ০১৭১৮৯০২০১০

পুনঃতদন্ত হচ্ছে আমিরজান হত্যা মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক | নরসিংদী প্রতিদিন-
  • প্রকাশের তারিখ | বৃহস্পতিবার, ১০ ফেব্রুয়ারী, ২০২২
  • ৫৮১ পাঠক

নরসিংদীর মাধবদীতে আলোচিত আমিরজান হত্যা মামলা পুনঃতদন্তের জন্য নরসিংদী জেলা গোয়েন্দা শাখা (ডিবি)তে হস্তান্তর করার নির্দেশ দিয়েছেন বিজ্ঞ আদালত। বুধবার (৯ ফেব্রুয়ারি) এ মামলার শুনানির দিন ধার্য ছিল। এ মামলাটির পুনঃতদন্তের জন্য নির্দেশদেন নরসিংদীর বিজ্ঞ আদালতের সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মারুফা আহমেদ। গত বছর এ হত্যাকাণ্ডের মামলার বাদী আমিরজানের স্বামী হোসেন আলী মাধবদী থানা পুলিশের প্রতিবেদন (চার্জশিট) এর বিরুদ্ধে না রাজি জানিয়েছেন বলে জানান বাদী পক্ষের নিযুক্ত আইনজীবী খন্দকার আতাউর রহমান।

মামলা সূত্র ও স্বজনরা জানান, জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে গত বছরের ৩১ জানুয়ারী নরসিংদীর মাধবদীতে মৈষাদী গ্রামের প্রবাসী রফিকুল ইসলামের ছেলে মোশাররফ হোসেন অনিক (২২) ও তার সাথে একটি আমগাছ কাটা নিয়ে তার দাদী আমিরজান (৫০)’র কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে অনিকের স্বজনদের সাথে ঝগরা সৃষ্টিহয় এসময় উত্তেজিত হয়ে অনিক তার দাদীকে মারধর করে ও ধারালো অস্ত্রদিয়ে কুপিয়ে আহত করে। এসময় আমিরজানের স্বামী হোসেন আলী এগিয়ে এলে তাকেও কুপিয়ে আহত করা হয়। আহত দু’জনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হলে পরদিন দুপুরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আমিরজানের মৃত্যু হয়। হোসেন আলী নিরহ হওয়ায় ঘটনাটিকে ধামাচাপা দিতে একটি মহল তৎপর হয়ে উঠে। এরপর স্বামী হোসেন আলী বাদী হয়ে নাতী মোশাররফ হোসেন অনিক (২২) সহ চারজন ও আরও অজ্ঞাত আসামী করে মাধবদী থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। এ ঘটনায় মাধবদী থানা পুলিশ নিহত আমিরজানের সৎ ছেলে রফিকুল ইসলামের স্ত্রী ও মোশাররফ হোসেন অনিকের মা হাফেজা (৪০) এবং অনিকের চাচা মোস্তফা (৩৫) ও অনিককে গ্রেফতার করে নরসিংদীর আদালতে সোপর্দ করেন। অপর এক আসামী অনিকের মামা রহমত আলী (৪৫) পলাতক ছিলেন। পরে বিজ্ঞ আদালত থেকে অনিক বাদে তিনজন জামিনে মুক্তি পায়। এ মামলায় সঠিক তদন্ত ও ন্যায় বিচারের একাধিক মানববন্ধন করা সহ জন্য সকলের সহযোগিতা কামনা করেন নিহতর স্বামী ও স্বজনরা।

নিহত আমিরজানের ছেলে আবুবকর সিদ্দিক রনি বলেন, আমার মাকে হারিয়েছি আমি, এ হত্যাকাণ্ডের এক আসামী মোশাররফ হোসেন অনিক কারাগারে রয়েছে। এ মামলায় আরও তিনজন জামিনে রয়েছেন। মায়ের নির্মম হত্যাকাণ্ডে জড়িতদের বিচারের জন্য বিজ্ঞ আদলাতের শরণাপন্ন হয়েছি। এ মামলাটি মাধবদী থানা পুলিশকে তদন্তের নির্দেশ দেন নরসিংদীর বিজ্ঞ আদালত। মাধবদী থানা পুলিশের তদন্তে অসন্তোষজনক হওয়ায় পুনঃরায় তদন্তের জন্য সিআইডিতে দেয়ার জন্য নরসিংদীর বিজ্ঞ আদালতে নারাজি দেন আমার বাবা হোসেন আলী। অবশেষে দীর্ঘ একবছর পর পুনঃতদন্তের জন্য নরসিংদীর ডিবিতে হস্তান্তর করার নির্দেশ দিয়েছেন নরসিংদীর বিজ্ঞ আদালত। আমার মায়ের হত্যার সঠিক তদন্ত ও ন্যায় বিচারের মাধ্যমে জড়িতদের সর্বচ্চো শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।

নিহত আমিরজানের বৃদ্ধস্বামী হোসেন আলী বলেছেন, চার্জশিটে আসামীর নাম সহ আরও অনেক ভুল করেছে, আমিত অশিক্ষিত মানুষ, কিছুই বুঝিনা। আমার স্ত্রী হত্যার সঠিক তদন্ত সাপেক্ষে ন্যায় বিচার পাইলে মরেও শান্তি পাবো।

এ হত্যা মামলার বাদী পক্ষের নিযুক্ত বিজ্ঞ আইনজীবী খন্দকার আতাউর রহমান বলেছেন, নরসিংদীর বিজ্ঞ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে আমিরজান হত্যার বিচার প্রক্রিয়াধীন। এ মামলার বাদী হোসেন আলী পুলিশের প্রতিবেদনের বিরুদ্ধে না রাজি জানিয়েছেন। বাদীর অভিযোগের ভিত্তিতে এ মামলা নিরপেক্ষ তদন্তের জন্য বিজ্ঞ আদালতের বরাবর না রাজি প্রদান করা হয়। বুধবার ৯ ফেব্রুয়ারি চার্জশিট না রাজী শুনানির দিন ধার্য ছিল। এ মামলাটির পুনঃতদন্তের জন্য নির্দেশদেন বিজ্ঞ আদালতের সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মারুফা আহমেদ।

নরসিংদী জেলা গোয়েন্দা শাখা (ডিবি)’র ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল বাশার বলেছেন, বিজ্ঞ আদালতে নির্দেশ আমরা সর্বচ্চো গুরত্বসহ পালন করে থাকি। আমিরজান হত্যা মামলার পুনঃতদন্তের বিষয়ে অবগত হয়েছি।



এই পাতার আরও সংবাদ:-



বিজ্ঞাপণ দিতে ০১৭১৮৯০২০১০



DMCA.com Protection Status
টিম-নরসিংদী প্রতিদিন এর সার্বিক তত্ত্বাবধানে শাহিন আইটি এর একটি প্রতিষ্ঠান-নরসিংদী প্রতিদিন-
Theme Customized BY WooHostBD